নিরাপদ ফেসবুক ব্যবহার

প্রতিনিয়ত ফেসবুকের জনপ্রিয়তা যেমন বাড়ছে, সেই সাথে বিভিন্ন একাউন্টে ব্যক্তিগত তথ্য থাকা এবং সামাজিক বা ব্যবসায়িক যোগাযোগ থাকার দরুণ একাউন্টগুলোতে অনেক ক্ষেত্রেই হ্যাকারদের লক্ষ্যে পরিণত হচ্ছে। আর তাই ফেসবুক একাউন্টটিকে সুরক্ষিত রাখতে নিয়মিত নিরাপত্তা পরীক্ষকরণ খুবই জরুরী।  এছাড়াও হ্যাক হতে পুনরুদ্ধারের পরপরই নিম্নোক্ত পদক্ষেপ গ্রহণ করুন –

১। একই পাসওয়ার্ড সব জায়গায় ব্যবহার করা উচিত নয়, বর্ণ ও সংখ্যার সংমিশ্রনে পাসওয়ার্ড ব্যবহার করা উচিত।

২। জন্মতারিখ, মোবাইল নাম্বার বা নাম পাসওয়ার্ড হিসেবে ব্যবহার করবেন না।

৩। লগ ইন এর ক্ষেত্রে  Auth/OTP ভিত্তিক দুটি পদক্ষেপ চালু রাখবেন।

৪। একাউন্ট সেটিং এ যাবেন  https://www.facebook.com/settings এবং সংশ্লিষ্ট ই-মেইল এবং মোবাইল নাম্বার যাচাই করবেন। অপরিচিত সব কিছু মুছে ফেলবেন।

৫। সিকিউরিটি অপশনে যাবেন এবং ডিভাইসের সকল  লগ ইন চেক করবেন।

৬। আপনার একাউন্টে কোন কোন অ্যাপস অনুমোদন প্রাপ্ত তা যাচাই করবেন। অপ্রয়োজনীয় অ্যা্পস খুবই দ্রুত মুছে ফেলবেন।

৭। অপরিচিত বা অল্প পরিচিত সকল মোবাইল অ্যাপস মুছে ফেলবেন।

Know More

ইন্টারনেটের নিরাপদ ব্যবহার ২ : অনলাইনে যা দেখেন তা সবই বিশ্বাস করবেন না ইন্টারনেটের নিরাপদ ব্যবহার ২ : অনলাইনে যা দেখেন তা সবই বিশ্বাস করবেন না 

সাইবার নিরাপত্তা’ এ যুগের গুরুত্বপূর্ণ একটি বিষয় এতে কোন রকম সন্দেহ নেই। কিছু সচেতনতা ও উপায় যার মাধ্যমে আমরা আমাদের বিভিন্ন রকম ক্ষতি থেকে নিরাপদ রাখতে পারি। ইন্টারনেটের এমন অনেক

ইন্টারনেটের নিরাপদ ব্যবহার ১ইন্টারনেটের নিরাপদ ব্যবহার ১

বর্তমান যুগে ইন্টারনেট আর মোবাইলের সহজলভ্যতার কারণে নানা রকম সুবিধার পাশাপাশি মানুষ নানা রকম ক্ষতিকারক ওয়েবসাইট ও হয়রানির সম্মুখীন হচ্ছে। অনেকে ইন্টারনেটের নিরাপদ ব্যবহারের বিষয়গুলো সম্পর্কে না জানার কারণে নানা

অনলাইন গোপনীয়তাঅনলাইন গোপনীয়তা

সোশ্যাল মিডিয়াতে নিজের ও অন্যের ব্যক্তিগত তথ্য গোপন রাখা অত্যন্ত জরুরী। যথাযথ পদক্ষেপ গ্রহণ করলে সকল প্রকার অনলাইন সমস্যা থেকে সহজেই সুরক্ষিত থাকা সম্ভব। যা যা ব্যক্তিগত রাখবেন এবং অনলাইনে